দেওয়ান ফরিদ গাজীর ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী কাল

প্রকাশিত: 3:24 PM, November 18, 2018

দেওয়ান ফরিদ গাজীর ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী কাল

নিজস্ব প্রতিবেদন
জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ট সহচর, বৃহত্তর সিলেট আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সংগঠক ও মহান মুক্তিযুদ্ধের উত্তর পূর্বাঞ্চলীয় রণাঙ্গনের ৪ ও ৫নং সেক্টরের বেসামরিক উপদেষ্টা সিলেটের মাটি ও মানুষের নেতা কিংবদন্ত্রী জননেতা দেওয়ান ফরিদ গাজী এমপির ৮ম মৃত্যু বার্ষিকী আগামীকাল। ২০১০ সালের ১৯ নভেম্বর বার্ধক্যজনিত কারণে ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেণ। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৫ বছর। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ছিলেন।

মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দেওয়ান ফরিদ গাজীর পরিবারের উদ্যোগে সোমবার কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে।

কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- দুপুর সাড়ে ১২টায় মাজার জিয়ারত ও শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন, বাদ যোহর হযরত শাহজালাল (রহ) দরগাহ মসজিদ প্রাঙ্গনে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল।

অনুষ্ঠানে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী এবং মরহুম ফরিদ গাজীর শুভাকাঙ্খি ও অনুসারীসহ আত্মীয় স্বজনদের অংশ নিতে পরিবারের পক্ষ থেকে আহবান জানিয়েছেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি গাজী মো.জাফর সাদেক (কয়েছ গাজী )।
ফরিদ গাজীর সংক্ষিপ্ত পরিচিতি:
মরহুম দেওয়ান ফরিদ গাজী ১৯২৬ সালের ২রা এপ্রিল হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ থানার দেবপাড়া গ্রামে এক সম্ভ্রান্ত জমিদার পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতা দেওয়ান হামিদ গাজী। হযরত শাহ জালাল (রঃ) এর সাথী ৩৬০ আউলিয়ার অন্যতম হযরত শাহ তাজ উদ্দীন কুরেশী তাদের পূর্ব পুরষ।

১৯৫৩’ থেকে ১৯৫৫ পর্যন্ত সিলেটের প্রাচীনতম ‘সাপ্তাহিক যুগভেরী পত্রিকার সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন তিনি। ‘১৯৪২সালে কুইট ইন্ডিয়া’ আন্দোলনের মাধ্যমে ছাত্র রাজনীতিতে যোগদান করেন। তিনি আসাম প্রাদেশিক মুসলিম ছাত্র ফেডারেশনের সহ-সম্পাদক নির্বাচিত হন। ১৯৪৫ সালে আসামে বাঙ্গাল খেদাও আন্দোলন, ১৯৪৬ সালে গণভোট, ১৯৫২-এর ভাষা আন্দোলন, ১৯৬৯ সালের গণ-অভ্যুথান, ১৯৭১-এর মুক্তিযুদ্ধসহ সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সক্রিয় ভূমিকা পালন করেন তিনি।

ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দিয়ে রাজনীতি শুরু করা এই রাজনীতিক ১৯৭০ সালে সাধারণ নির্বাচনে সিলেট- ১ আসন থেকে জাতীয় পরিষদ সদস্য (এমএনএ) নির্বাচিত হন। বঙ্গবন্ধু সরকারের স্থানীয় সরকার ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী এবং পরে বানিজ্য প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন।

১৯৯৬, ২০০১ এবং ২০০৮ সালে হবিগঞ্জ-১(নবীগঞ্জ-বাহুবল) আসন থেকে সংসদ-সদস্য নির্বাচিত হন এবং বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

  •  

সর্বশেষ ২৪ খবর