বিশ্বনাথে নির্বাচনী পোস্টার ছেড়ায় সম্ভাব্য প্রার্থী মুশফিকের নিন্দা

প্রকাশিত: ৫:৪৮ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৭, ২০২০

বিশ্বনাথে নির্বাচনী পোস্টার ছেড়ায় সম্ভাব্য প্রার্থী মুশফিকের নিন্দা

নিজস্ব প্রতিবেদক
সিলেট শহরসহ বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগর উপজেলায় বিভিন্ন জায়গায় হাজার হাজার নির্বাচনী পোস্টার ছিড়ে ফেলা হয়েছে। পোস্টাগুলো ছিল সিলেট-২ আসনে (বিশ্বনাথ-ওসমানীনগর) সম্ভাব্য সংসদ সদস্য পদপ্রার্থী মুশফিকুর রহমান শিপনের। তিনি সিলেট শহরসহ তার নির্বাচনী এলাকার দুই উপজেলার বিভিন্ন স্থানে পোস্টারগুলো সাঁটিয়ে রাখেন। কিন্তু শুত্রæতাবশত: কে বা কারা রাতের আধারে তার হাজার হাজার পোস্টার ছিড়ে ফেলে। এতে তিনি ভারাক্রান্ত হয়ে পড়েন। তবে ন্যাক্কারজনক ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান তিনি।

 

এ প্রতিবেদকের সাথে আলাপকালে মুশফিক বলেন, সিলেট শহরসহ বিশ্বনাথ ওসমানীনগর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে আমার সমর্থনে হাজার হাজার পোস্টার লাগানো হয়েছিল। কিন্তু রাতের আধারে সেইগুলো পোস্টারগুলো ছিড়ে ফেলা হয়েছে। যা অত্যন্ত নিন্দনীয় ও কুরুচিপূর্ণ কাজ।

 

তিনি বলেন, দেশের অন্যতম বৃহৎ রাজনৈতিক দল বিএনপি থেকে আমি প্রার্থীতা ঘোষণার চিন্তা করি। সেই লক্ষ্যে আমি শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ও দেশ নেত্রী খালেদা জিয়া ও দেশ নায়ক তারেক রহমানের ছবি সম্বলিত পোস্টার ছাপা করি এবং প্রচার ও জন সমর্থনে এসব পোস্টার বিভিন্ন স্থানে লোক দিয়ে সাঁটিয়ে নেই। কিন্তু এই পোস্টারগুলো ছিড়ে ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্ম দিয়েছে দুষ্কৃতিকারীরা।

 

ক্ষোভের সাথে মুশফিক জানান, এটা গণতান্ত্রিক দেশ। আর নির্বাচন করা গণতান্ত্রিক অধিকার। বিএনপি কোনো ছোট সংগঠন নয় এবং দলের মনোনয়ন যে কেউ চাইতেই পারে, দল যাকে মনোনয়ন দিবে সেই আগামী নির্বাচনে ধানের শীষের প্রার্থী হবে, তাই বলে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ও দেশ মাতা খালেদা জিয়া ও দেশ নায়ক তারেক রহমান এর পোস্টার ছিড়ে ফিলবে এটা কীভাবে সম্ভব? আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।

 

গণতান্ত্রিক দেশে এমন আইন বহিভর্‚ত এবং নিন্দনীয় আচরণের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং এবিষয়ে তিনি আইনী ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলেও জানান।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর