সততা নিষ্ঠা এবং দক্ষতার সাথে কাজ করলে মানুষের ভালোবাসা অর্জিত হয় : তারিকুজ্জামান

প্রকাশিত: 3:28 PM, February 28, 2019

সততা নিষ্ঠা এবং দক্ষতার সাথে কাজ করলে মানুষের ভালোবাসা অর্জিত হয় : তারিকুজ্জামান

ডেস্ক প্রতিবেদন
বাংলাদেশ ব্যাংক, সিলেটের নির্বাহী পরিচালক সৈয়দ তারিকুজ্জামান বলেছেন, সততা, নিষ্ঠা এবং দক্ষতার সাথে কাজ করলে মানুষের ভালোবাসা অর্জন করা যায়। বাংলাদেশ ব্যাংক সিলেট অফিসের সিনিয়র কেয়ারটেকার মিয়া আব্দুল মন্নান তেমনি তাঁর সততা ও নিষ্ঠা দ্বারা কর্মক্ষেত্রে দায়িত্ব পালন করে সকলের ভালোবাসা অর্জন করেছেন। ব্যাংকে তাঁর কর্মচেতনা অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।

বাংলাদেশ ব্যাংক, সিলেট-এর সিনিয়র কেয়ারটেকার মিয়া মো. আব্দুল মন্নান-এর অবসরোত্তর ছুটিতে গমন উপলক্ষে বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বুধবার বিকেলে ব্যাংকের সম্মেলন কক্ষে সর্বস্তরের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের উদ্যোগে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংক, সিলেট-এর মহাব্যবস্থাপক মো. সাজ্জাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মহাব্যবস্থাপক মাকসুদা বেগম এবং অনুভূতি ব্যক্ত করেন বিদায়ী অতিথি সিনিয়র কেয়ারটেকার মিয়া মো. আব্দুল মন্নান।
মো. আলমগীর ও মাহমুদুল হাসানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- অবসরপ্রাপ্ত উপমহাব্যবস্থাপক আতিকুর রহমান, উপমহাব্যবস্থাপক মো. কমর উদ্দিন, উপমহাব্যবস্থাপক (ক্যাশ) মো. আবুল কালাম আজাদ, যুগ্ম পরিচালক মো. জাবেদ আহমদ, যুগ্ম ব্যবস্থাপক (ক্যাশ) মো. আশরাফ হোসেন, উপব্যবস্থাপক মো. আব্দুল হাদী,

বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব-এর সাধারণ সম্পাদক আলী আক্তার, অফিসার্স ওয়েলফেয়ার কাউন্সিল-এর সহসভাপতি আব্দরু রহমান, অফিসার্স এসোসিয়েশন ক্যাশ সভাপতি বিনয় ভূষণ রায়, বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মচারী নিবাস কল্যাণ সংঘের সভাপতি মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ, বাংলাদেশ মসজিদ কমিটির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাফিজ, বাংলাদেশ ব্যাংক সিবিএ-এর সভাপতি মোফাখখারুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওয়াদুদ মো. আলমগীর, বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মচারী সংঘের সভাপতি আব্দুল মতিন।

বিদায়ী অতিথিকে নিবেদিত মানপত্র পাঠ করেন ও বিদায়ী অতিথির হাতে মানপত্র তুলে দেন সিনিয়র ডাটা এন্ট্রি কন্ট্রোল অপারেটর আশরাফুজ্জামান রুম্মান। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন আব্দুর রহমান। অনুষ্ঠানের শেষে বিদায়ী অতিথিকে বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পক্ষ থেকে সম্মাননা ক্রেস্ট, প্রাইজবন্ড এবং শুভেচ্ছা স্মারক প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে বিদায়ী অতিথির পরিবারের সদস্যবৃন্দ এবং ব্যাংকের সর্বস্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ স্বত:স্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণ করেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মহাব্যবস্থাপক মাকসুদা বেগম বলেন, মিয়া মো. আব্দুল মন্নান সুস্থভাবে ও সুন্দর পরিবেশে বিদায় নিতে পেরেছেন, এটা অত্যন্ত আনন্দের। তাঁর হাতে এখন পর্যাপ্ত সময়। এসময়ের সদ্ব্যবহার করে তিনি একটা সুন্দর সময় উপভোগ করবেন বলে আমার প্রত্যাশা।

অনুভূতি ব্যক্ত করে সিনিয়র কেয়ারটেকার মিয়া মো. আব্দুল মন্নান বলেন, কর্মজীবনে চেষ্টা করেছি সততা, নিষ্ঠা ও দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালনের জন্য। আমার বাকী জীবনটা যাতে সুন্দরভাবে কাটাতে পারি সেজন্য সকলের দোয়া প্রত্যাশী।

সভাপতির বক্তব্যে মহাব্যবস্থাপক মো. সাজ্জাদ হোসেন বলেন, কর্মক্ষেত্রে আমাদেরকে আরো বেশি সততা, দক্ষতা ও দায়িত্ববোধ নিয়ে কাজ করতে হবে। মানুষের ভালোবাসা অর্জন করাই জীবনের শ্রেষ্ঠ সম্পদ। যা অর্জন করেছেন মিয়া মো. আব্দুল মন্নান। আজকের সর্বস্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের স্বত:ষ্ফূর্ত অংশগ্রহণ তার প্রমাণ।

  •  

সর্বশেষ ২৪ খবর