গরু নিয়ে নদী পারাপার : কানাইঘাটে পানিতে ডুবে যুবক নিখোঁজ

প্রকাশিত: 5:23 PM, October 31, 2018

গরু নিয়ে নদী পারাপার : কানাইঘাটে পানিতে ডুবে যুবক নিখোঁজ

কানাইঘাট প্রতিনিধি
কানাইঘাটে কয়েকি গরু নিয়ে সুরমা নদী পার হওয়ার সময় পানিতে ডুবে এক যুবক নিখোঁজ হয়েছেন। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি ডুবুরি দল দিনব্যাপী সুরমা নদীর নিখোঁজ স্থানে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করেও কোন সন্ধান পায়নি। এঘটনায় নিখোঁজ আব্দুর রহমানের পরিবারে শোকের মাতম চলছে।

নিখোঁজ আব্দুর রহমান(৩২) উপজেলার ১নং লক্ষ্মীপ্রসাদ পূর্ব ইউপির মিকিরপাড়া গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল করিমের ৩য় ছেলে। তিনি পৃথক একটি বাড়িতে স্ত্রীসহ ১ ছেলে ও ১ মেয়ে নিয়ে বসবাস করতেন বলে স্থানীয়রা জানান।

জানা যায়, বুধবার ভোর অনুমান ৬টায় ৩টি গরু নিয়ে মন্তাজগঞ্জ বাজারের পশ্চিমে হেকার বাড়ীর ঘাট দিয়ে সুরমা নদী পার হওয়ার সময় নদীতে তলিয়ে যান আব্দুর রহমান। স্থানীয়রা সকাল ৯টা পর্যন্ত তাকে খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে সিলেট ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলকে খবর দেন। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের সিলেট ইউনিটের একটি ডুবুরি দল বুধবার দিনব্যাপী উল্লেখিত স্থানে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করেও কোন সন্ধান পায়নি।

ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন স্থানীয় বিজিবি’র একটি দল ও কানাইঘাট থানার এসআই সনজিত কুমার রায়সহ সঙ্গীয় ফোর্স।

উদ্ধার অভিযানে উপস্থিত ছিলেন- ১নং লপ্রিসাদ পূর্ব ইউপি চেয়ারম্যান ডাঃ ফয়াজ উদ্দিন, একই ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের সদস্য মুজির উদ্দিন, নিহতের পিতা বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল করিমসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং এলাকার নারী পুরুষসহ উৎসুক জনতা।

বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল করিম বলেন, কি কারণে আমার ছেলে আব্দুর রহমান ৩টি গরু নিয়ে সুরমা নদী পার হতে গেল, তা আমার জানা নেই। আমি সকালে আমার কৃষি েেতর জমিতে সেঁচ দিতে গিয়েছিলাম। এসময় আব্দুর রহমান সুরমা নদীতে ডুবে নিখোঁজ হওয়ার খবর পাই।

স্থানীয়রা জানান, আব্দুর রহমান চোরাই পথে সীমান্তের অপার থেকে গরু এনে এপারে সুরমা নদী পার করে দিত। স্থানীয় গরু ব্যবসায়ীরা তাকে গরু পারাপারের লাইনম্যান হিসেবে ব্যবহার করে আসছিল।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর