ডিএসসিসি নির্বাচন : নৌকা আছে, নেই ধানের শীষ

প্রকাশিত: 1:06 PM, January 15, 2020

ডিএসসিসি নির্বাচন : নৌকা আছে, নেই ধানের শীষ

ডেস্ক প্রতিবেদন : রাজধানী ঢাকার দক্ষিণাংশে ধানমন্ডি, গ্রীন রোড, বসুন্ধরা, পান্থপথ, জিগাতলা, ট্যানারি মোড়, হাজারীবাগ, বেড়িবাঁধ, কামরাঙ্গীরচরের ঝাউচর বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনের কোনো পোস্টার নেই। এমনকি এসব এলাকায় ধানের শীষের কোনো অফিসও নজরে পড়েনি। তবে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপসের নৌকা মার্কা পোস্টারে সয়লাব। শুধু পোস্টারই নয়, কিছু দূর পর পরই তাপসের নির্বাচনী অফিস রয়েছে। গত দু’দিনে (সোম ও মঙ্গলবার) এসব এলাকা সরেজমিন ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) নির্বাচনে বড় রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগ এবং বিএনপি মনোনীত দু’জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস এবং বিএনপি থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন।

আসন্ন এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী শেখ ফজলে নূর তাপসের নৌকা মার্কা পোস্টারে তার নির্বাচনী এলাকার অলিগলিতে ছেয়ে গেছে। তাছাড়া আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরাও জানান দিচ্ছেন যে, তাদের শক্তিশালী এবং ক্লিন ইমেজের প্রার্থী আছেন। পক্ষান্তরে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী ইশরাক হোসেনের পোস্টার যেমন চোখে পড়ছে না তেমনি কর্মীরও অভাব। নির্বাচনী অফিসও চোখে পড়ছে না।

ধানমন্ডির বিএনপি সমর্থিত জয়নাল আবেদীন এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘বিএনপিকে তো পোস্টার লাগাতেই দিচ্ছে না। তাছাড়া ক্ষমতাসীন দলের লোকেরা নানাভাবে হুমকি ধামকি দিচ্ছে। বিএনপির অনেক নেতাকর্মী এখন চুপচাপ রয়েছেন। পোস্টার বা অফিস না থাকলেও বিএনপির ভোটারের অভাব নেই। নিরপেক্ষ ভোট হলে, মানুষ যদি ভোট দিতে পারে তাহলে লাখ লাখ ভোট পড়বে ধানের শীষে।’

জিগাতলায় বসবাস করেন আওয়ামী লীগের ঘোর সমর্থক আবদুর রাজ্জাক। তিনি বলেন, ‘বিএনপির নেতাকর্মীরা নিজেরাই মাঠে নেই। সিটি করপোরেশনের নির্বাচন নিয়ে আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা যেমন সিরিয়াস বিএনপির প্রার্থীরা ততটা সিরিয়াস না। এছাড়া অফিস করার জন্য তারা কর্মীও খুঁজে পাচ্ছে না। নিবেদিত প্রাণ বিএনপিতে কম থাকার কারণেই তাদের এ দশা।’

বিএনপির মনোনীত প্রার্থী ইশরাক মঙ্গলবার গণসংযোগকালে সাংবাদিকদের বলেন, ‘বিভিন্ন স্থানে আমাদের পোস্টার ছিড়ে ফেলা হচ্ছে। বিএনপির কর্মীদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। ফলে আমাদের অনেক কর্মী কাজ করার সাহস পাচ্ছে না।’

তবে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস মঙ্গলবার ঝাউচরে গণসংযোগকালে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘বিএনপি নালিশ করতে থাকুক আর আমরা ভোট চাইতে থাকি। বিএনপি অযথা মিথ্যাচার করছে।’

নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ৩০ জানুয়ারি ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। দুই সিটির প্রতিটি কেন্দ্রে এবার ভোটগ্রহণ হবে ইভিএমের মাধ্যমে। ওইদিন সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলবে ভোটগ্রহণ।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর