তৃপ্তির ঢেঁকুরে অভিন্ন দুই কান্ডারী !

প্রকাশিত: 2:53 PM, March 15, 2020

তৃপ্তির ঢেঁকুরে অভিন্ন দুই কান্ডারী !

ডেস্ক প্রতিবেদন :: মতাদর্শ এক। অভিন্ন রাজনীতির দুই কান্ডারী দু’জন। দু’জনের রাজনৈতিক দীক্ষা ছাত্রজীবন থেকেই। একজনের কাধেঁ জেলার রাজনীতি এবং অপরজন সামলাচ্ছেন মহানগর আওয়ামী লীগ। ইতোমধ্যে দু’জনই ব্যতিক্রম সব আয়োজনের মধ্য দিয়ে নিজেদের যোগ্যতার প্রমান দিয়েছেন দক্ষতার সাথে। বিগত দিনের প্রথা পাল্টিয়ে দলীয় কর্মসূচীতে যোগ করেছেন নতুন মাত্রা। প্রতিটি কর্মসূচীতে অভাবনীয় সাফল্য তাদের নেতৃত্বের প্রতি আস্থা যুগিয়েছে কর্মীদের। সেই সাথে বেড়েছে সংগঠনে গতিশীলতা।
বর্ণিত দু’জনের একজন হলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক , এক সময়ের সিলেটের মাঠ কাঁপানো ডাকসাইটে ছাত্রনেতা এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান এবং অপরজন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক ছাত্রনেতা অধ্যাপক জাকির হোসেন। সিলেটে আওয়ামী লীগের সম্মেলন পরবর্তী কেন্দ্রীয় নির্দেশে দলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের জেলা ও মহানগরে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দুজনের নাম ঘোষণা করেন। এর মধ্যে জেলা সভাপতির দায়িত্ব পান বর্ষিয়ান প্রবীণ রাজনীতিবিদ ও সিলেট জেলা পরিষদের সদস্য এডভোকেট লুৎফুর রহমান এবং মহানগরে সভাপতির দায়িত্বপ্রাপ্ত হন বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মাসুক উদ্দিন আহমদ।
জাতির পিতার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী এবং মুজিববর্ষকে সামনে রেখে জেলা এবং মহানগর আওয়ামী লীগ সিলেটে টানা ২০ দিনের কর্মসুচী গ্রহণ করে। ঘোষিত কর্মসুচী শুধু সিলেটে নয়-দেশের আর কোথাও এমন বর্ণাঢ্য আয়োজন শোনা যায়নি। তাছাড়া, কর্মসূচীতে প্রতিদিনই থাকছে ভিন্নতা। যেখানে ধারণ করা হচ্ছে ধর্মনিরপেক্ষতা এবং বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক দর্শন। প্রতিদিনই কর্মসুচীতে ঢল নামছে বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষ।
বিষয়ভিত্তিক কর্মসুচীর মধ্য দিয়ে ইতোমধ্যে সিলেটের সকল শ্রেণীর মানুষের প্রশংসায় ভাসছে আওয়ামী লীগ। এই কর্মসুচী প্রণয়নের মূল নেপথ্যে ছিলেন এই দুইজন। কর্মসুচী কেন্দ্রীক সারাক্ষণ পরিকল্পনার গুরু দায়িত্ব ন্যস্থ দু’জনের হাতে। অনুষ্ঠানস্থলেও দু’জনকে দেখা যায় বেশ প্রাণোচ্ছল। তৃপ্তির ঢেঁকুর লেগে আছে দু’জনের চোখে-মুখে।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর