পেট্রোলিয়াম এসোসিয়েশনের দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা

প্রকাশিত: 7:25 PM, January 11, 2020

পেট্রোলিয়াম এসোসিয়েশনের দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা

ডেস্ক প্রতিবেদন : বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম ডিলারস, ডিস্ট্রিবিউটরস, এজেন্টস্ এন্ড পেট্রোলপাম্প ওনার্স এসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় সভাপতি মোঃ নাজমুল হক বলেছেন, সিলেট বিভাগের ডিজেল সংকট দূরীকরণে অবিলম্বে সিলেট-চট্টগ্রাম ও সিলেট-ঢাকা রেললাইনকে ডাবল লাইনে রূপান্তরিত করতে হবে। তা না হলে, জরুরী প্রয়োজনে সেবাদানকারী সরকারি মালিকানাধীন এ জ্বালানী পণ্যের সংকট প্রকট আকার ধারণ করবে। তিনি বলেন, আপাতত আশুগঞ্জ ডিপো থেকে ডেসপাচ-এর মাধ্যমে ডিজেল সংকটের সুরাহা করা গেলেও তা ব্যয়বহুল হয়ে যাবে। তিনি এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীসহ সরকারের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সদয় দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।
১১জানুয়ারি শনিবার বিকেলে সিলেটের চন্ডিপুলস্থ একটি অভিজাত কনভেনশন হলে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম ডিলারস, ডিস্ট্রিবিউটরস, এজেন্টস্ এন্ড পেট্রোলপাম্প ওনার্স এসোসিয়েশন সিলেট বিভাগীয় শাখার দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। শাখা সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ মোস্তফা কামাল’র সভাপতিত্বে এবং তরুণ উপস্থাপক রেজওয়ানা চৌধুরী’র সঞ্চালনায় এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন এসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক জুবায়ের আহমদ চৌধুরী এবং বাংলাদেশ ট্যাংকলরি শ্রমিক ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ শাহজাহান ভূইয়া। আমন্ত্রিত অতিথি ছিলেন এসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ মুজিবুর রহমান মানিক, কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মীর আহসান উদ্দিন পারভেজ ও এম এ হামিদ, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক জাহেদ আহমদ তপন, সংগঠনের চট্টগ্রাম বিভাগীয় সভাপতি এহসানুর রহমান চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক মঈন উদ্দিন চৌধুরী, বরিশাল বিভাগীয় সভাপতি এনায়েত হোসেন খান, বাংলাদেশ ট্যাংকলরি ওনার্স এসোসিয়েশনের সিলেট বিভাগীয় সভাপতি হুমায়ুন আহমদ, বাংলাদেশ ট্যাংকলরি শ্রমিক ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সিনিয়র সহ-সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল মতিন মুন্সি ও সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা। স্বাগত বক্তব্য রাখেন এসোসিয়েশনের বিভাগীয় নেতা এ্যাডভোকেট সিরাজুল হোসেন আহমদ আলমগীর। বিভাগীয় কমিটির পক্ষে বক্তব্য রাখেন অধ্যাপক ফয়জুল ইসলাম, শফিকুল ইসলাম শফিক (সুনামগঞ্জ), এনামুর রহমান রুবেল, আখতার ফারুক লিটন, সায়েম আহমদ, সৈয়দ সাইফুল আলম (মৌলভীবাজার), মনিরুল ইসলাম, জুবের আহমদ চৌধুরী, খান মোঃ ফরিদ উদ্দিন, নলিনী কান্ত রায় (হবিগঞ্জ), মুশফিকুর রহমান চৌধুরী শাহেদ, এমাদ উদ্দিন খান, রিয়াদ উদ্দিন, রফিকুল ইসলাম রফিক, লোকমান আহমদ মাছুম, আব্দুল মুমিন, মাহবুবুর রহমান, জাভেদ হাসান প্রমুখ। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সিলেট বিভাগীয় ট্যাংকলরি শ্রমিক ইউনিয়ন সভাপতি মোঃ মনির হোসেন, ব্রাম্মনবাড়িয়া জেলা ট্যাংকলরি শ্রমিক ইউনিয়ন সভাপতি সোহেল খন্দকার ও সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ রহিম। পবিত্র কোরআন থেকে তেলওয়াত করেন এসোসিয়েশনের অন্যতম নেতা নুরুল ওয়াছেহ আলতাফী। এর আগে অতিথিদেরকে এসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করা হয়। সভার শুরুতে জাতীয় সঙ্গীত বাজানো হলে উপস্থিত সকলে দাঁড়িয়ে সম্মান প্রদর্শন করেন।
সাধারণ সভায় এসোসিয়েশনের সিলেট বিভাগীয় শাখার নেতারা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, সিলেটে উৎপাদিত অকটেন ও পেট্রোল জাতীয় জ্বালানী পণ্য দেশের মোট চাহিদার ৯২ শতাংশ পুরণ করে থাকে। কিন্তু বিপরীতে সিলেটের ডিজেল চাহিদা পুরণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ব্যর্থ। তারা বলেন, শুষ্ক মৌসুমে খাদ্য উৎপাদনের লক্ষ্যে সিলেট অঞ্চলে ডিজেলের প্রচুর চাহিদা থাকে। কিন্তু রেলওয়ের ওয়াগন সংকট, রেলওয়ের অবকাঠামোগত দূর্বলতার কারণে সিলেটে সপ্তাহে মাত্র দুদিন ডিজেল সরবরাহ করা হয়। ফলে সিলেট বিভাগে ডিজেল সংকট নিত্যদিনের ব্যাপার। বক্তারা বলেন, এভাবে মাসের পর মাস ডিজেল সংকট থাকলে সিলেট অঞ্চলে খাদ্য উৎপাদন ব্যহত হবে। বিশেষ করে বোরো আবাদে এর প্রভাব পড়বে এবং পরবর্তীতে খাদ্য সংকট দেখা দেবে। তাই এ অবস্থা থেকে উত্তরণে অবিলম্বে সময়োপযোগী পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য তারা কর্তৃপক্ষের প্রতি জোর দাবি জানান।
পরে আমন্ত্রিত অতিথিদেরকে মধ্যাহ্নভোজে আপ্যায়িত করা হয়।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর