সব পর্নোগ্রাফি ওয়েবসাইট বন্ধে হাইকোর্টের নির্দেশ

প্রকাশিত: 3:56 PM, November 19, 2018

সব পর্নোগ্রাফি ওয়েবসাইট বন্ধে হাইকোর্টের নির্দেশ

ডেস্ক প্রতিবেদন

বাংলাদেশের সব পর্নোগ্রাফি ওয়েবসাইট বন্ধ করতে হাইকোর্টের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। সোমবার (১৯ নভেম্বর) দুপুরে হাইকোর্ট থেকে এ নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

দেশে পর্নো ওয়েবসাইট বন্ধে একাধিকবার উদ্যোগ নেওয়া হলেও এসব সাইট পুরোপুরি ব্লক করা সম্ভব হয়নি। কিছুদিনের জন্য বন্ধ করা গেলেও পরবর্তীতে সাইটগুলো সচল হয়ে যায়।

পর্নো সাইট বন্ধ করতে না পারার পেছনে প্রযুক্তিগত সমতার অভাবও একটি বড় কারণ বলে জানা গেছে।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, পর্নো সাইট কারিগরিভাবে শতভাগ বন্ধ করা সম্ভব নয়। তবে ৯০ ভাগ বন্ধ করা সম্ভব। শতভাগ বন্ধের চেষ্টা করাও উচিত নয়। তাহলে সে চেষ্টা ব্যর্থও হতে পারে।

২০১৬ সালের ডিসেম্বর মাসে সরকার দেশে ৫৬০টি পর্নো সাইট বন্ধের নির্দেশ দেয়। এই ঘোষণা সে সময় দ্রুত কার্যকর করে সংশ্লিষ্টরা। সে সময় ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর সংগঠন আইএসপিএবি’র সাধারণ সম্পাদক ইমদাদুল হক জানান, বিটিআরসির পাঠানো ৫৬০টির মধ্যে ৯০ শতাংশ সাইট বন্ধ করা সম্ভব হয়েছে। তালিকার অবশিষ্ট ১০ শতাংশ সাইট বন্ধ করতে সময় লাগছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘কিছু কিছু সাইট কাউডে হোস্ট করা। ফলে আইপি ধরে ধরে সেগুলো বন্ধ করতে হচ্ছে। দেখা গেল একটা আইপি ধরে বন্ধ করা হলো, সঙ্গে সঙ্গে আরেকটি আইপির মাধ্যমে ওই সাইট চালু হয়ে গেল।’ তিনি বলেন, ‘কারিগরি বিভিন্ন কারণে পর্নো সাইট বন্ধে কখনও পুরোপুরি সফল হওয়া যায় না।’

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ ২৪ খবর